সোমবার ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯

মীরুর বিরুদ্ধে মানববন্ধন, ফেরার পথে হামলায় আহত ২

মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯, ২২:০৯

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে সন্ত্রাসী মীরু ও তার বাহিনীর বিরুদ্ধে মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারী দুইজন বাড়ি ফেরার পথে হামলার শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) বিকেলে চাষাঢ়া রেলস্টেশন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ব্যবসায়ী ও জেলা মুক্তিযুদ্ধ প্রজন্ম লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক চাঁদ সেলিম দাবি করেন, আহত তানভীরের কপালে কোপ লেগেছে। আহত তানভীর ও নাঈমকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তাদের মধ্যে দুজনের অবস্থাই গুরুতর।

তিনি আরও জানান, পাগলা এলাকায় সন্ত্রাসী মীর হোসেন মীরু ও তার সহযোগীদের গ্রেফতার এবং তার আস্তানা উচ্ছেদের দাবিতে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধন করেছে কুতুবপুরের ভুক্তভোগীরা। মীরু ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশের তালিকাভুক্ত দশ নম্বর সন্ত্রাসী। পাগলা কুতুবপুরের সর্বস্তরের জনগণের ব্যানারে আয়োজিত এই মানববন্ধন থেকে মীর হোসেন মীরু ও তার বাহিনীর নির্মম নির্যাতনের বর্ণনা করেন ভুক্তভোগীরা। মানববন্ধন শেষে ট্রেনে পাগলা ফেরার পথে চাষাঢ়া রেলষ্টেশনে আসলে মীরুর ভাগিনা শাকিল তার সহযোগী গেন্দু ও ভিপি রাজিবসহ ১৫/২০ ধারালো ছুরি, লাঠি নিয়ে আমাদের উপর হামলা চালায়। এ সময় তানভীরের কপালে কোপ দিলে সে মাটিতে লুটে পড়ে। এরপর নাঈমকে এলোপাথারি মারধর করে মৃত্যু নিশ্চিত জেনে তারা চলে যায়। পরে আশপাশের লোকজনের সহযোগিতায় তাদের দুজনকে আশংকাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

মীর হোসেন মীরু এ অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, চাঁদ সেলিমের লোকজন নিজেরাই মারামারি করে ঘটনাটি ভিন্ন দিকে নিতে আমার ও আমার ভাগিনা শাকিলের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা করার চেষ্টা করছে। আমি পঙ্গু, দু’টি পা অচল ঘর থেবে বের হতে পারি না। আমার ভাগিনা জন্ডিসের চিকিৎসা করতে দু’দিন আগে কলকাতা গিয়েছে। আমি ন্যায় বিচারের জন্য এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত চাই।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি আসলাম হোসেন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সব খবর
নগরের বাইরে বিভাগের সর্বশেষ