সোমবার ২৭ মে, ২০১৯

বাজারে নেই মনিটরিং ব্যবস্থা, সক্রিয় অসাধু চক্র

রবিবার, ১২ মে ২০১৯, ১৯:২০

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: রমজান আসলেই বাড়তে থাকে নিত্যপণ্যের মূল্য। দ্রব্যের উর্ধ্বগতি রোধে সংশ্লিষ্ট সরকারি অধিদপ্তরগুলো থেকে বাজার নিয়ন্ত্রণের বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়ার কথা থাকলেও অনিয়ন্ত্রিত নিত্যপণ্যের বাজার। রমজানকে কেন্দ্রে করে মনিটরিং ব্যবস্থা না থাকায় তৎপর হয়ে উঠেছে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী। যে যার ইচ্ছে মতো বৃদ্ধি করছে পণ্যের দাম। ফলে ভোগান্তির শিকার সাধারণ মানুষ।

রমজানকে কেন্দ্র করে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন থেকে মাংসের দাম নিয়ন্ত্রণে পদক্ষেপ নেয়া হলেও তা মানতে নারাজ ব্যবসায়ীরা। নাসিক কর্তৃক মূল্য তালিকা টানানো হলেও কৌশলে আদায় করে নেয়া হচ্ছে অতিরিক্ত টাকা। অন্যদিকে বাজারের মুদির দোকানসহ অন্যান্য দোকানগুলোকে নেই কোনো মূল্য তালিকা। বাজার মনিটরিংয়ে সিটি কর্পোরেশন ও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে নেয়া হয়নি কোনো কার্যকরী পদক্ষেপ। যার ফলে নিজ ইচ্ছে অনুযায়ী বাজার মূল্য বাড়াচ্ছেন ব্যবসায়ীরা।

নগরীর প্রধান পাইকারী ও কাচা বাজার দিগুবাবুর বাজার। নগরীর আশে-পাশের সকল ছোট বড় বাজারগুলোর দ্রব্যমূল্যের দাম মূলত নিয়ন্ত্রিত হয় দিগুবাবুর বাজারের পাইকারি দামের উপর। খুচরা বিক্রেতারাও এখান থেকে পাইকারী ধরে পণ্য কিনে খুচরা মূল্যে বিক্রি করেন। আর এই বাজারেই নেই সার্বক্ষণিক মনিটরিং ব্যবস্থা। বাজারের কোনো দোকানেই নেই মূল্য তালিকা। একই অবস্থা নগরীর আশেপাশের বাজারগুলোতে। যেমন, কালিবাজার, বাবুরাইল, মাসদাইর বাজার, বউবাজার।

দীর্ঘদিন যাবত দিগুবাবুর বাজারের নির্বাচিত কোনো বাজার কমিটি নেই। বাজার কমিটি হিসেবে এক সময় যারা ছিল তাদের অনেকেই মারা গেছেন। তারা কেউ তেমনিভাবে বাজারের প্রতি লক্ষ্য রাখেন না। যার ফলে বাজার এখন কিছু ভাগে বিভক্ত হয়ে আছে। যেমন, সবজির বাজার, মাংসের বাজার, মাছের বাজার ইত্যাদি। এতেও তেমন কোনো লাভ হয়নি। ব্যবসায়ীরা নিজেরা নিজেরাই মূল্য নির্ধারণ করেন এবং বিক্রি করেন। যার ফলে বাজার মূল্যের উপর টানা যাচ্ছে না কোনো লাগাম। আর রমজানকে কেন্দ্র করে আরো বেপরোয়া হয়ে উঠে এই বাজার।

রমজান শুরুর ৪দিন পার হয়েগেলেও বাজার নিয়ন্ত্রণে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন বা জেলা প্রশাসন থেখে এখনো নেয়া হয়নি কোনো উদ্যোগ। পরিচালিত হয় ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান বা কোনো প্রকার সতর্কতা মূলক অভিযান। ফলে ক্ষুব্ধ নগরবাসী।

সব খবর
অর্থনীতি বিভাগের সর্বশেষ