শুক্রবার ২৩ আগস্ট, ২০১৯

‘বন্দুক যুদ্ধে’ নিহত কামুর বিরুদ্ধে সদর থানায় কোন হত্যা মামলা নেই

শনিবার, ২ জুন ২০১৮, ১৮:০০

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: গোয়েন্দা বিভাগ বলছে গাজীপুরে বৃহস্পতিবার (৩১ মে) রাত আড়াইটায় ‘বন্দুক যুদ্ধে’ নিহত কামুর বিরুদ্ধে নারায়ণগঞ্জ সদর থানায় ২টি হত্যা মামলা রয়েছে। আর সদর থানা বলছে, এই নামের ব্যক্তির বিরুদ্ধে থানায় কোন হত্যা মামলা নেই। বৃহস্পতিবার (৩১ মে) দিবাগত রাত আড়াইটায় ঘটিত তথাকথিত বন্দুকযুদ্ধে কামাল খান ওরফে কামরুল ইসলাম ওরফে কামু (৩২) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়। পুলিশের দাবি নিহত ব্যক্তি মাদক ব্যবসায়ী। গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক আমীর হোসেন জানান, ‘নারায়ণগঞ্জ সদর থানায় কামুর বিরুদ্ধে দুইটি হত্যা মামলা রয়েছে।’ কিন্তু সদর থানায় খোজ নিয়ে জানা যায়, এ নামে সদর থানায় কোন হত্যা মামলা নেই।

চারদিকে যখন ‘বন্দুকযুদ্ধ’ নিয়ে নানা সমালোচনা সেখানে আবার নতুন করে প্রশ্ন উঠেছে গাজীপুরে ‘বন্দুক যুদ্ধে’ নিহত কামাল খান ওরফে কামরুল ইসলাম ওরফে কামুকে নিয়ে। পুলিশ প্রথমে জানায়, গাজীপুরে নিহত ব্যক্তির নাম কামরুল ইসলাম কামু। নিহত কামু টঙ্গীর এরশাদ নগর এলাকার মৃত সিরাজ উদ্দিন খান ওরফে তমিজউদ্দিন খানের ছেলে। পরবর্তীতে জানা যায়, এই পরিচয়ের ব্যক্তি কাশিমপুর কারাগারে ২ বছর ধরে সাজা ভোগ করছে। কামুর স্ত্রী এ তথ্য নিশ্চিত করেন। কারাগারে খোজ নিয়েও দেখা যায় এই নামের ব্যক্তি কারাগারে আছেন এবং জীবিত। পরবর্তীতে পুলিশ জানায় নিহত ব্যক্তির নাম কামাল খান ওরফে কামু। সে টঙ্গীর পূর্ব আরিচপুর এলাকার মৃত সিরাজ খানের ছেলে। এদিকে গোয়েন্দা বিভাগের পরিদর্শক আমীর হোসেন জানান, কামাল খান ওরফে কামুর বিরুদ্ধে নারায়ণগঞ্জ সদর থানায় ২টি হত্যা মামলা রয়েছে। এছাড়াও গাজীপুর, কালীগঞ্জ ও ঢাকার শেরে বাংলা থানায় আরো ১২টি মামলা রয়েছে। কিন্তু নারায়ণগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুল ইসলাম প্রেস নারায়ণগঞ্জকে জানান, এই নামে কোন ব্যক্তির নামে সদর থানায় কোন হত্যা মামলা নেই।

কামরুল ইসলাম আরো বলেন, ‘সদর থানায় যদি তার বিরুদ্ধে মামলা থাকতো তাহলে আমাদের কল করে জানানো হতো। আমাদের এখনো পর্যন্ত কিছু জানানো হয় নি। আর আমার জানামতে, এই নামে কোন ব্যক্তির বিরুদ্ধে হত্যা মামলা সদর থানায় নেই।’

সব খবর
নগরের বাইরে বিভাগের সর্বশেষ