সোমবার ১৭ ডিসেম্বর, ২০১৮

নির্বাচন নেই, সড়কের সংস্কারও নেই

শনিবার, ১০ নভেম্বর ২০১৮, ২০:২৩

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: ফতুল্লা ইউনিয়নের কুতুবআইল এলাকাবাসীর যাতায়াতের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক শিবু মার্কেট বাসস্টান্ড-ওয়াবদারপুল সড়ক। কিন্তু ৪-৫ বছর যাবৎ এলাকাবাসী সড়কটি নিয়ে দূর্ভোগে পড়ে আছেন। সড়কটি নিয়ে এলাকাবাসীর ভোগান্তি সকলের জানা আছে। কিন্তু ভোগান্তি দূরীকরণে কারো কোন উদ্যোগ নেই। ২৭ বছর পূর্বে ফতুল্লা সীমানা নিয়ে একটি মামলা হয়। সেই মামলাকে কেন্দ্র করে ২৭ বছর ধরে ফুতুল্লা ইউনিয়ন পরিষদে কোন নির্বাচন হচ্ছে না। ফলে জনপ্রতিনিধিদের এলাকার উন্নয়নে যথাযথ কোন উদ্যোগ নেই বলে জানান এলাকাবাসী।

শনিবার (১০ নভেম্বর) সরজমিনে দেখা যায় সড়কটির ভোগান্তির কিছু চিত্র। সড়কটিতে ১৫-২০ ফুটের বড় বড় সাথে ছোট ছোট গর্তে সড়কটি এখন কূপে পরিনত হয়েছে। তবে দূর দৃশ্য দেখে খাল বলেই উপহাস করে এলাকাবাসী। সড়কে কার্পেটিং, ইট-সুরকি নেই বললেই চলে। পথচারীদের হোঁচট খেয়ে পরা, অটোরিকশা উল্টে যাওয়া সড়কের প্রতিদিনের গল্প। এর সাথে কার্ভাড ভ্যান, ট্রাক, পিকআপ আটকে সৃষ্টি হয় যানজট।

কুতুবাইল এলাকার বাসিন্ধা অবসরপ্রাপ্ত ব্যাংক কর্মচারী রুহুল আমিন বলেন, আমাগো কষ্টের কথা জেনে কোন লাভ নাই, ভাঙা কোমর জোড়া লাগে এই রাস্তায়। ডাক্তারের কাছে যাওনের প্রয়োজন হয় না। এই রাস্তা দিয়া রিকশায় গেলে কোমরে ব্যাথা বাড়ে আর সুবিধামত হাঁটারও ব্যবস্থা নেই। পুরা রাস্তা গর্ত। দুইপাশ দিয়া একফুট করে জায়গা আছে। গর্ত দিয়া গাড়ি চালানো না গেলে গাড়ি ওইখানে ওই জায়গায় উঠায় দেয়। এমন করে কিভাবে হাঁটে? তবুও প্রতিদিন এই রাস্তা মানুষ চলাচল করি, উপায় নাই। যে এলাকায় নির্বাচনই হয় না সেই এলাকার উন্নয়ন কিভাবে হইব? নির্বাচিত প্রতিনিধি না থাকায় কাঙ্খিত উন্নয়ন থেকে আমরা বঞ্চিত হচ্ছি।

এলাকাটি শিল্প এলাকা হওয়ায় ছোট ছোট বেশ কিছু কারখানা রয়েছে। বড় কারখানার কিংবা গার্মেন্টসের পন্য কাভার্ড ভ্যান দিয়ে পাঠানো হলেও ছোট কারখানাগুলো ভ্যান দিয়ে পন্য আনা নেওয়া করে। দেখা যায় একাধিক ভ্যান পন্য নিয়ে ব্যাপক কষ্ট করে রাস্তা পার হচ্ছে। ভ্যান চালক মো. রহমতুল্লাহ বলেন, ঘরে চাল নেওয়ার চিন্তা থাকলে সব কাজই করতে হয়। দিনে ৫-৬ বার এই রাস্তা দিয়ে মাল নিয়া আসা যাওয়া করি।

স্থানীয় ইলেকট্রনিক্স দোকানের মালিক নুরুল ইসলাম বলেন, রিকশা ভাড়া ১০ টাকার স্থলে ২০ টাকা নেয়। কখনো ৩০ টাকাও রাখে। অটো ভাড়াও বাড়াইছে। ৫ টাকার ভাড়া ১০ টাকা। ১০ টাকার ভাড়া ১৫ টাকা রাখে। তবে অটো রিকশার ভাড়া বাড়ানো হলেও শিক্ষার্থীদের জন্য আগের ভাড়াই নেওয়া হয়।সড়কের ভোগান্তিতে পড়ে আছেন বিভিন্ন স্কুলের শিক্ষার্থীরা। ৭৪ নং কুতুবআইল মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের গেটের সামনে ৪র্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী মিম দাড়িয়ে আছে মায়ের জন্য। কারণ রাস্তা ভাঙা, এজন্য আম্মু তাকে নিয়ে যায়। মিম জানায়, আগে একাই যেতাম। এখন রিকশা দিয়ে আম্মুর সাথে যাই।

হাজীগঞ্জ-শিবু মার্কেট ইজিবাইক মালিক কল্যান পরিষদের সভাপতি নরুন্নবী স্বপন বলেন, এই রাস্তা ঠিক করার দাবিতে এ বছর আমরা দুইবার মানববন্ধন করেছি। রাস্তাটা গত বছর পুরাই অচল হয়ে গিয়েছিল। গাড়ির সমস্যা হতো। দুইদিন পর পর গাড়ি নষ্ট হয়ে যেতো। গাড়ি ঠিক করতেও অনেক টাকা লাগে। কয়েকবার লোহার কাচরা দিয়ে জায়গা ভরাট করেছি। কিন্তু বৃষ্টির পানিতে আবার আগের মতো হয়ে যায়।

এলজিইডি নারায়ণগঞ্জ অফিসের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. সেলিম সরকার বলেন, সড়কটি প্রায় ৯ কোটির টাকার প্রকল্প। এই সড়কে ৪২টি পাইপের কাজ রয়েছে। পাইপগুলো বানানোর কাজ চলছে। এজন্যই সড়কটির কাজ শুরু করতে সময় লাগছে। শীগ্রই কাজ শুরু হয়ে যাবে।

সব খবর
জনদুর্ভোগ বিভাগের সর্বশেষ