রবিবার ১৬ মে, ২০২১

জমি দখলের অভিযোগে রফিকের বিরুদ্ধে ঢাকায় সংবাদ সম্মেলন

মঙ্গলবার, ৪ মে ২০২১, ১১:৪৮

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: রূপগঞ্জের কায়েতপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের ও রংধনু গ্রুপের চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে ৫০০ বিঘা জমি দখলের অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ভুক্তভোগীরা। এর মধ্যে অর্ধেকই ওয়েলকেয়ার কনসোর্টিয়াম লিমিটেড নামের একটি প্রতিষ্ঠানের বলে দাবি করেন এর চেয়ারম্যান এ বি জামান।

সোমবার (৩ মে) দুপুরে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে এসব অভিযোগ আনা হয়।

লিখিত বক্তব্যে তারা বলেন, গত ২২ এপ্রিল বেলা ১১টার সময় রূপগঞ্জের কায়েতপাড়ার মাঝিনা মৌজার ওয়েলকেয়ারের অফিসে এসে রফিকুল ইসলামসহ তাঁর সহযোগীরা চাঁদা দাবি করেন। টাকাপয়সা না দেওয়ায় তাঁরা অফিসে থাকা নিরাপত্তারক্ষীদের বের করে দিয়ে অফিস ভাঙচুর করেন ও মালামাল লুট করে নিয়ে যান। আর মাঠের ভেতরে থাকা ওয়েলকেয়ার কোম্পানির দুটি টিনের ঘর আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেন রফিকুল। ওই টিনের ঘরে ছয় থেকে সাতজন লোক থাকেন। যাঁরা কোম্পানির পাহারাদার ছিলেন।

রফিকের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়, জমির যেসব স্থানে ওয়েলকেয়ার কোম্পানির সাইনবোর্ড ছিল, তা মুছে একটি শিল্পপ্রতিষ্ঠানের নাম লেখা হয়। ওই শিল্পপ্রতিষ্ঠানের নাম ব্যবহার করে রফিকুল ইসলাম কৌশলে মানুষের জায়গা দখল করেছেন। বিষয়টি ৯৯৯ ফোন করে নারায়ণগঞ্জের পুলিশ সুপার ও রূপগঞ্জের উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে (ইউএনও) জানানো হয়। পরে রূপগঞ্জ থানার দুই থেকে তিনজন পুলিশ সদস্য সেখানে আসেন। তবে পুলিশ নীরব ভূমিকা পালন করেছে।

এ ঘটনায় থানায় মামলা করতে গেলেও মামলা নেওয়া হয়নি বলে অভিযোগে জানানো হয়। পরে ওয়েলকেয়ার গ্রুপের পক্ষ থেকে রফিকুল ইসলামসহ অন্যদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করা হয়েছে। আদালত উভয় পক্ষকে আইনশৃঙ্খলা বজায় রাখার নির্দেশনা দেন।

এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে রূপগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) জসীম উদ্দিন বলেন, অনেক দিন ধরে ওয়েলকেয়ার কোম্পানির সঙ্গে জমি–সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে স্থানীয় চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলামের বিরোধ চলে আসছে। পরে ওয়েলকেয়ার কোম্পানি আদালতে গেলে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার স্বার্থে উভয় পক্ষকে নোটিশ দেওয়া হয়। তবে ওয়েলকেয়ার কোম্পানির পক্ষ থেকে কেউ থানায় আসেননি।

সব খবর
নগরের বাইরে বিভাগের সর্বশেষ