মঙ্গলবার ০২ মার্চ, ২০২১

গ্রামের নাম ‘মুজিববর্ষ ভিলেজ’

শুক্রবার, ২২ জানুয়ারি ২০২১, ১৮:২০

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: গ্রামের নাম ‘মুজিববর্ষ ভিলেজ’। নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের মুড়াপাড়ায় শীতলক্ষ্যা নদীর তীরে গড়ে তোলা হয়েছে নতুন এই গ্রাম। ২০টি পরিবার নিয়ে এই গ্রাম। এই গ্রামের বাসিন্দাদের জীবনের বেশিরভাগ সময় তাদের কেটেছে অন্যের জায়গায়, অন্যের ঘরে। এখন প্রত্যেক পরিবারের রয়েছে ২ শতাংশ খাস জমির উপর নির্মিত সুন্দর একটি বাড়ি। বাড়িতে রয়েছে দুটি কক্ষ, একটি শৌচাগার, একটি গোসলখানা, রান্নাঘর আর একটি বারান্দা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্বোধনের পর শনিবার থেকে তাদের পরিচয়ে থাকবে না ভূমিহীন-গৃহহীন পরিচয়। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষে আশ্রয়ন-২ প্রকল্পের আওতায় জমিসহ ঘর পেলেন এই ২০ পরিবার।

মুজিববর্ষ ভিলেজে বাড়ি পেয়েছেন রূপগঞ্জের বামনগাঁও এলাকার রুনা বেগম। শেষ জীবনে এসে নিজের একটি ঠিকানা পাওয়ার আনন্দে তার কণ্ঠ ছিল বাষ্পরুদ্ধ। বললেন, “খুব ভাল লাগছে। এত সুন্দর বাড়ি পামু কোনদিন ভাবি নাই। দেশের মাতা শেখ হাসিনা এই বাড়ি দিছে, নামাজ পইড়া সারা জীবন তেনার জন্য দোয়া করুম।”

মশারির কারিগর ইকবাল হাসান। সামান্য যা আয় করতেন তার বেশিরভাগই চলে যেত বাড়ি ভাড়ায়। এবার উপহার হিসেবে বাড়ি পাওয়ায় খেয়ে-পরে ভালোভাবে চলতে পারবেন বলে তার বিশ্বাস। বাড়ি উপহার পাওয়ায় প্রধানমন্ত্রীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন তিনি।

রাজমিস্ত্রী স্বামী সারা জীবন মানুষের ঘর তৈরি করলেও খুশি বেগমদের থাকতে হয়েছে অন্যের ঘরে। উপহার হিসেবে বাড়ি পেয়ে খুশি বেগম এবার সত্যি খুশি।

স্বামী হারানোর পর মেয়ের বাড়িতেই থাকতেন অশিতীপর আছিয়া বেগম। দিনমজুর একমাত্র ছেলেও থাকে ভাড়া বাড়িতে। মেয়ের বাড়ি ছেড়ে ছেলেকে নিয়ে আছিয়া বেগম এখন উঠবেন প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে উপহার পাওয়া নিজের ঘরে।

সব খবর
নগরের বাইরে বিভাগের সর্বশেষ