সোমবার ১৯ আগস্ট, ২০১৯

কাঁচপুরে এসআইকে চাপা দেয়া সেই চালক গ্রেপ্তার

বুধবার, ২২ মে ২০১৯, ১৭:১৩

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের বন্দর মালিবাগ এলাকায় যানজট নিরসনে দায়িত্ব পালনকালে কাভার্ডভ্যানের চাপায় এসআই ফরিদ আহাম্মেদ (৩৮) মৃত্যুর ঘটনায় মাকসুদ মিয়া (২৩) নামে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২১ মে) চট্টগ্রামের আকবর শাহ থানা এলাকা থেকে মাকসুদ মিয়াকে (২৩) গ্রেপ্তার করে পুলিশ। নিহত এসআই ফরিদ আহাম্মেদ হবিগঞ্জ জেলার চুনারুঘাট থানার ঘেরারু মানিক জমাদ্দারের ছেলে। ওই ঘটনায় ১২ এপ্রিল রাতেই বন্দর থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।

জানা যায়, গত ১২ এপ্রিল হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের অষ্টমী স্নান উৎসব উপলক্ষে ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কের সোনারগাঁও উপজেলার মেঘনাঘাট থেকে কাঁচপুর এলাকা পর্যন্ত যানবাহনের চাপ বেড়ে গিয়ে যানজটের সৃষ্টি হয়। আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে ও যানজটমুক্ত রাখতে ওই দিন ভোরে পিকআপভ্যানে টহল ডিউটি পালন করছিল কাঁচপুর হাইওয়ে থানার এসআই ফরিদ আহাম্মেদের নেতৃত্বে একদল পুলিশ।

এ সময় বন্দরের মালিবাগ ক্যাসেল এলাকায় যানজটে আটকে যাওয়া এক ট্রাক চালক গাড়িতেই ঘুমিয়ে পড়েন। এ কারণে ওই এলাকায় যানজট আরও তীব্র আকার ধারণ করতে থাকে। যানজট নিরসনে এ সময় সেখানে কর্তব্যরত কাঁচপুর হাইওয়ে থানার এসআই ফরিদ আহাম্মেদ পায়ে হেঁটে রাস্তা পারাপার হয়ে ঘুমিয়ে পড়া ওই ট্রাক চালককে ডেকে তোলেন ও গাড়ি চালানোর জন্য অনুরোধ করেন।

এক পর্যায়ে ওই ট্রাক চালক গাড়ি চালানো শুরু করলে পিছন দিক থেকে আসা চট্টগ্রাম থেকে ঢাকাগামী কভার্ডভ্যান বেপরোয়া গতিতে এসে এসআই ফরিদ আহাম্মেদকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। পুলিশ ঘাতক কাভার্ডভ্যানটিকে আটক করলেও এ সময় চালক দৌঁড়ে অন্যত্র পালিয়ে যায়।

কাঁচপুর হাইওয়ে থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আলী রেজা জানান, ঘটনার পর থেকেই গা ডাকা দেয় কাভার্ডভ্যানের চালক মাকসুদ মিয়া। তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে এসআইকে চাপা দেয়া কাভার্ডভ্যানের চালক মাকসুদ মিয়াকে ঘটনার প্রায় ১ মাস ৯ দিন পর মঙ্গলবার ভোররাতে চট্টগ্রামের আকবর শাহ থানা এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

সব খবর
নগরের বাইরে বিভাগের সর্বশেষ