শনিবার ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১

ওয়াজেদ আলীকে বহিষ্কার করেছিলেন খোকন সাহা

মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি ২০২১, ২২:৫০

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক থাকা অবস্থায় অ্যাড. ওয়াজেদ আলী খোকনকে (বর্তমান পিপি) বহিষ্কার করেছিলেন অ্যাড. খোকন সাহা। মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) দুপুরে জেলা আদালত প্রাঙ্গণে এক সমাবেশে বক্তব্য রাখতে গিয়ে একথা জানান খোদ খোকন সাহা।

দুপুর দেড়টার দিকে জেলা আইনজীবী সমিতির (বার) নির্মাণাধীন বার ভবনের সামনে অনুষ্ঠিত আওয়ামী লীগ সমর্থিত সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের নির্বাচনী প্রচারণামূলক সমাবেশে অংশ নেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সিনিয়র আইনজীবী নেতা অ্যাড. খোকন সাহা। এ সময় বক্তব্য রাখতে গিয়ে বন্ধু অ্যাড. ওয়াজেদ আলী খোকনকে তিনি বহিষ্কারের কথা জানান। ওই সময় মহানগর আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও জেলা আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) ওয়াজেদ আলী খোকনও উপস্থিত ছিলেন।

অ্যাড. খোকন সাহা বলেন, ‘বিএনপি সমর্থিত সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী একটু ডিস্টার্ব করছিল পিপি সাহেবরে। এতে পিপি ওয়াজেদ আলী খোকন রাগ করে তাকে গালমন্দ করেছিল। ওই সময় আমি বারের সাধারণ সম্পাদক। এই সাধারণ সম্পাদক প্রার্থীর জন্য, তাকে সন্তুষ্ট করতে আমার বন্ধু ওয়াজেদ আলী খোকনকে এক মাসের জন্য বহিষ্কার করেছিলাম। কারণ একজন আইনজীবী ওয়াজেদ আলী খোকনের আচরণে ক্ষুব্দ হয়েছিল। কিন্তু তারা আইনজীবীর চেয়ারের উপর জুতা পায়ে দাড়িয়ে বক্তব্য দেয়।’

তিনি আরও বলেন, ‘এই বার ভবন কিন্তু সেলিম ওসমানের টাকা ও শামীম ওসমানের সহযোগিতায় হয়েছে। উন্নয়ন কিন্তু তারা (বিএনপি) করে নাই। উল্টা তারা বারের টাকা আত্মসাৎ করেছে। বিএনপি সমর্থিত প্যানেলের সভাপতি প্রার্থী কিন্তু দুই লাখ হিসেবে পরিচিত। এই দুই লাখ টাকা আমার বন্ধু ওয়াজেদ আলী খোকন তাকে বসিয়ে দেওয়ার জন্য তার হাতে তুলে দিয়েছিল।’

সম্মিলিত আইনজীবী সমন্বয় পরিষদের প্রার্থীদের জন্য ভোট চেয়ে খোকন সাহা বলেন, ‘ভোট কাকে দিবেন সেটা আপনাদের ইচ্ছা। উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চাইলে মোহসীন-মাহবুবুর প্যানেলকে ভোট দিবেন। নইলে বার জামাত-শিবিরের আন্ডারে চলে যাবে।’

সব খবর
রাজনীতি বিভাগের সর্বশেষ