সোমবার ১৯ আগস্ট, ২০১৯

এরশাদের মৃত্যুতে আমি পিতা হারিয়েছি: খোকা

রবিবার, ১৪ জুলাই ২০১৯, ২১:৪৩

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: সাবেক রাষ্ট্রপতি, জাতীয় সংসদের বিরোধী দলীয় নেতা ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন নারায়ণগঞ্জ-৩ (সোনারগাঁ) আসনের সংসদ সদস্য ও জাতীয় স্বেচ্ছাসেবক পার্টির কেন্দ্রীয় আহ্বায়ক লিয়াকত হোসেন খোকা।

এক শোক বার্তায় তিনি বলেন, ৯ বছরের সাবেক সফল রাষ্ট্রপতি পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ ছিলেন আমার রাজনৈতিক পিতা। তিনি আমাকে সন্তানের মত স্নেহ করতেন এবং আমিও তাকে পিতার মত শ্রদ্ধা করতাম। তিনি চলে যাওয়ায় আজ আমি পিতৃহারা হলাম। আল্লাহর কাছে প্রার্থনা, তিনি যেন পল্লীবন্ধুকে ক্ষমা করে জান্নাতবাসী করেন।

এমপি খোকা আরো বলেন, বাংলাদেশের ইতিহাসে একজন সফল রাষ্ট্রনায়ক ছিলেন পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। তিনি বলেছিলেন, ৬৮ হাজার গ্রাম বাঁচলে বাংলাদেশ বাঁচবে। এ কারনে বাংলার মানুষ তাকে পল্লীবন্ধু উপাধি দিয়েছিলো।

পল্লীবন্ধু হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ উপজেলা পরিষদ সৃষ্টি করেছেন, শান্তি মিশনে সৈনিক পাঠানোর উদ্যোগ নিয়েছেন, শুক্রবারকে সাপ্তাহিক ছুটি ঘোষণা করেছেন, ইসলামকে রাষ্ট্রধর্ম ঘোষণা করেছেন, বায়তুল মোকাররমকে জাতীয় মসজিদ ঘোষনা করেছেন, উপাসনালয় ও ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের বিল মওকুফ করেছেন।

এছাড়া তিনি সারাদেশে সড়ক ও যোগাযোগ ব্যবস্থার ব্যাপক উন্নয়ন, সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধ নির্মাণ, বায়তুল মোকাররমের উন্নয়ন, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা, সার্বজনীন বাধ্যতামূলক প্রাথমিক শিক্ষা প্রবর্তন, বিনামূল্যে পাঠ্যবই বিতরণ, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বৃদ্ধি, বিদেশে চাকরিপ্রাপ্তির সুযোগ বৃদ্ধি, যাকাত তহবিল ও ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্ট গঠন, গৃহ ও গুচ্ছগ্রাম নির্মাণ, বৃক্ষ নিধন রোধ, গ্রামে স্বাস্থ্য সেবা পৌঁছে দেয়া, হাসপাতালগুলোতে ঔষধ সরবরাহ বৃদ্ধি, সেচ প্রকল্প বৃদ্ধি, ফসল উৎপাদন বৃদ্ধি, কৃষিঋণ বিতরণ, বিদ্যুৎ উৎপাদক স্টেশন নির্মাণ, গ্যাসের সংযোগ বৃদ্ধি, সেচ প্রকল্প নির্মাণ, খেলার মাঠ তৈরী, শিশু পার্ক নির্মাণ, স্টেডিয়াম নির্মাণসহ আরো অসংখ্য উন্নয়ন ও জনসেবামূলক কাজ করেছেন। যা তাকে ইতিহাসের পাতায় আজীবন স্মরনীয় করে রাখবে।

সব খবর
রাজনীতি বিভাগের সর্বশেষ