মঙ্গলবার ১৮ জুন, ২০১৯

আড়াইহাজারে নির্যাতন করে গৃহবধূ হত্যার অভিযোগ

মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০১৯, ২১:৩২

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: আড়াইহাজারে খাদিজা (২১) নামে এক গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। নিহতের পরিবারের দাবি শ্বশুরবাড়ির লোকেদের নির্যাতনে তাকে হত্যা করা হয়েছে।

সোমবার (১০ জুন) রাতে উপজেলার হাইজাদী ইউনিয়নের নারান্দী এলাকার স্বামী মাহফুজ মিয়ার বাড়িতে ঘটনাটি ঘটেছে।

আড়াইহাজার থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক সজিব জানান, ভোরে স্থানীয় লোজনদের মাধ্যমে সংবাদ পেয়ে পুলিশ নারান্দী মাহফুজের বাড়ি থেকে খাদিজার মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

নিহতের পরিবারের লোকজনের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, বিগত সাড়ে তিন বছর আগে উপজেলার বিশনন্দী ইউনিয়নের চৈতনকান্দা গ্রামের আফাজউদ্দিনের মেয়ে খাদিজার সাথে মাহফুজের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই স্বামী মাহফুজ পলিথিনের ব্যবসা করার জন্য যৌতুক দাবী করে প্রায়ই খাদিজার পিতার কাছ থেকে টাকা আনার জন্য চাপ দিতো বলে দাবি খাদিজার পরিবারের। খাদিজা বেশ কয়েকবার বাপের বাড়ি থেকে টাকাও এনে দেয় স্বামীকে। তাতেও তার উপর স্বামীর নির্যাতন বন্ধ হতো না। ঈদের এক সপ্তাহ আগেও খাদিজার উপর শারীরিক নির্যাতন করে মাহফুজ। এতে খাদিজা পিতার বাড়িতে চলে যায়। পরবর্তীতে স্বামীর অনুরোধে খাদিজা ঈদের আগের দিন মাহফুজের বাড়িতে ফিরে আসে। নিহত খাদিজার বেলাল নামে দুই বছর বয়সী একটি পুত্র সন্তান রয়েছে।

নিহত খাদিজার পিতা আফাজউদ্দিন বলেন, আমার মেয়েকে নির্যাতন করে হত্যার পর বাড়িতে রেখে স্বামী মাহফুজসহ তার পরিবারের লোকজন পালিয়ে গেছে।

আড়াইহাজার থানার ওসি(তদন্ত) সফিকুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর আসল কারণ জানা যাবে।

সব খবর
নগরের বাইরে বিভাগের সর্বশেষ