বৃহস্পতিবার ২৫ এপ্রিল, ২০১৯

অনেকে হালুয়া-রুটির ভাগের জন্য আ’লীগার হয়েছেন: পলাশ

রবিবার, ১৭ মার্চ ২০১৯, ২২:২৭

প্রেস নারায়ণগঞ্জ.কম

প্রেস নারায়ণগঞ্জ: জাতীয় শ্রমিকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির শ্রমিক উন্নয়ন ও কল্যান বিষয়ক সম্পাদক কাউসার আহমেদ পলাশ বলেছেন, আজ হালুয়া রুটির ভাগাভাগির জন্য বড় বড় আওয়ামী লীগার হয়েছেন। উমোক লীগ তোমক লীগ করে বড় নেতা বনে গেছেন। অনেক দেখেছি অনেক ডায়লগ শুনেছি। আমরা চিনি কে আওয়ামীগের কর্মী আর কে আওয়ামী লীগার। অনেক অপশক্তি বিরুদ্ধে লড়াই করে আজও পর্যন্ত টিকে আছি।

রবিবার (১৭ মার্চ) সন্ধ্যা ফতুল্লার আলীগঞ্জ লেবার হলে জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে জাতীয় শ্রমিক লীগ ফতুল্লা আঞ্চলিক শাখা আয়োজিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যা করার পর বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন পালন করাতো দূরের কথা তার নাম নিতে দেয়া হয় নাই, তার ভাষণ শুনতে দিতো না। স্বাধীনতা বিরোধীরা বঙ্গবন্ধুর সৈনিককে অত্যাচার নির্যাতন সহ মিথ্যা মামলায় হয়রানি করতো। তৎকালীন সময়ে পুলিশ ও বিডিআরের বিরুদ্ধে রাজপথে এসে আন্দোলন সংগ্রাম করেছি। আমাদের তখন দাবি ছিল একটাই বাংলার মাটিতে বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার চাই করতে হবে।

শ্রমিক নেতা পলাশ বলেন, আজকে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনে শপত নিয়ে বলছি, যে সকল নেতাকর্মী দলের দুঃসময়ে নিঃস্বার্থ ভাবে রাজপথে থেকে আন্দোলন সংগ্রাম করেছে তাদের উল্টাপাল্টা কথা বলেন। আমি তাদের হুশিরী করে বলতে চাই, আর ধৈর্য ধরবো না। ঐ সকল আওয়ামী লীগার হাইব্রিডদের এবার শায়েস্তা করা হবে।

ফতুল্লা আঞ্চলিক কমিটির সাধারন সম্পাদক এস এম হুমায়ুন কবিরের সভাপতিত্বে অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন ইউপি সদস্য ও ফতুল্লা থান লোড আনলোড শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি জাহাঙ্গির আলম, জেলা শ্রমিক লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি হুমায়ুন কবির, ইউনাইটেড ফেডারেশন অব গার্মেন্টস ওর্য়াকার্সের জেলা কমিটির সভাপতি শাহাদাৎ হোসেন সেন্টু, ফতুল্লা থান লোড আনলোড শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারন সম্পাদক পিয়াস আহম্মেদ সোহেল, আলীগঞ্জ ক্লাবের ক্রিড়া সম্পাদক গোলাম কিবিরিয়া সাত্তার, শ্রমিক নেতা রয়েল সহ আরো বিভিন্ন ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দ।

সভা শেষে জাতিরজনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের রুহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।

সব খবর
রাজনীতি বিভাগের সর্বশেষ